চারঘাটের ঝিকরায় জমি নিয়ে দ্বন্দ্বে বাবার হাতে ছেলে খুন

kuddus

রাজশাহীর চারঘাটে জমি নিয়ে বিরোধের জেরে বাবার হাতে খুন হলো ছেলে। মঙ্গলবার সকালে (১৬ আগস্ট) উপজেলার সরদহ ইউনিয়নের হুজারপাড়া গ্রামে এঘটনা ঘটে।

নিহতের পরিবার ও থানা সুত্রে জানা যায়, নিহত জাহাঙ্গীর আলম (৪২) উপজেলার সরদহ ইউনিয়নের হুজারপাড়া গ্রামের আব্দুল কুদ্দুস এর ছেলে। আসামী কুদ্দুসের দুইটি স্ত্রী। প্রথম বউ এর পক্ষের ছেলে নিহত জাহাঙ্গীর আলম। দ্বিতীয় পক্ষের মেয়েদের নামে জমি লিখে দেয়াকে কেন্দ্র করে দীর্ঘ দিন ধরে বাবা ছেলের এ সংক্রান্ত বিরোধ চলে আসছিল।

তারই জের হিসাবে সকালে হুজারপাড়া মাঠে পাট কাটার জন্য ক্ষেতে যায় জাহাঙ্গীর। পাট কাটার এক পযার্য়ে তার ছেলে জাহাঙ্গীরকে বাবা কুদ্দুস বাধা দিলে শুরু হয় কথা কাটাকাটি এক পর্যায়ে কুদ্দুসের হাতে থাকা হাসুয়া দিয়ে এলোপাতাড়ি ভাবে আঘাতে রক্তাক্ত হয়ে মাটিতে লুটে যায় জাহাঙ্গীর।

-জীবন আর্ট এন্ড ডিজিটাল সাইন
চারঘাটের ঝিকরায় জমি নিয়ে দ্বন্দ্বে বাবার হাতে ছেলে খুন ২

স্থানীয়রা তার চিৎকার শুনে তাকে উদ্ধার করে প্রথমে চারঘাট উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে আসে। পরে তার অবস্থার অবনতি হলে তাকে উন্নত চিকিৎসা জন্য রামেক হাসপাতালে নিয়ে যাবার পথেই তিনি মারা যান।

পড়ুনঃ-  চারঘাট বাঘায় নিয়োগ দেবে শপ আপ

নিহতের পরিবার সুত্রে জানান, দ্বিতীয় স্ত্রীর ছেলে-মেয়েদের নামে সম্পত্তি লিখে দিলে প্রথম স্ত্রীর ছেলে জাহাঙ্গীর পিতার সাথে প্রায় বাতবিন্ড করতেন। ঘাতক পিতা ঘটনার পরথেকে পালাতক থাকলেও পরে চারঘাট মডেল থানা পুলিশ তাকে আটক করতে সক্ষম হয়।

এব্যাপারে চারঘাট মডেল থানার অফিসার ইনচার্জ (ভারপ্রাপ্ত) আব্দুল লতিফ জানান, খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে পৌছায়। তবে পারিবারিক কলহের ও দীর্ঘ দিন ধরে জমি জমা সংক্রান্ত বিরোধ এর জের ধরে পিতার হাতে পুত্র খুনের এই ঘটনাটি ঘটে। লাশটি উদ্ধার করে ময়না তদন্তে জন্য রামেক হাসপাতালে প্রেরণ করা হয়। ২৪ঘন্টার মধ্যে ঘাতক পিতা কুদ্দুসকে আটক করা হয়েছে।

দৈনিক চারঘাট ইউটিউব চ্যানেলে SUBSCRIBE করুন।

পড়ুনঃ-  চারঘাটে উপজেলা বিএনপির ঈদ পূর্নমিলনী অনুষ্ঠান