রাস্তা সংস্কারের দাবিতে বানেশ্বর-ঈশ্বরদী মহাসড়ক বন্ধ করে বিক্ষোভ

রাস্তা সংস্কারের দাবিতে বানেশ্বর-ঈশ্বরদী মহাসড়ক বন্ধ করে বিক্ষোভ

রাজশাহীচারঘাটে রাস্তা সংস্কারের দাবিতে বানেশ্বর-ঈশ্বরদী অঞ্চলিক মহাসড়কের সরদহ মোক্তারপুর ট্রাফিক মোড় অংশ বন্ধ করে বিক্ষোভ করেছে স্থানীয়সহ স্কুল-কলেজ পড়ুয়া শিক্ষার্থীরা।

বিক্ষোভের কারণে বন্ধ হয়ে যায় বানেশ্বর-ঈশ্বরদী আঞ্চলিক এ মহাসড়কে চলাচলকারী সকল যানবাহন। এতে চরম যানজট ও যাত্রীদের ভোগান্তি সৃষ্টি হয়। শনিবার সকাল এগারোটা থেকে শুরু হয় বিক্ষোভ কর্মসুর্চী।

-জীবন আর্ট এন্ড ডিজিটাল সাইন

জানা যায়, চারঘাট উপজেলার মোক্তারপুর ট্রাফিক মোড় থেকে ইউসুফপুর টাঙ্গন হয়ে রাজশাহী শহরে যাবার বিকল্প রাস্তাটি দীর্ঘদিন ধরে খানা-খন্দকে ভরা। ভারী যানবাহন চলাচল ও দীর্ঘদিন রাস্তাটির সংস্কার না হওয়ায় রাস্তাটি মানুষের চলাচলের জন্য অনুপযোগী হয়ে পড়েছে।

পড়ুনঃ-  চারঘাটে হত্যার ২২ দিনেও উদঘাটন হয়নি রহস্য, হতাশায় পল্লী চিকিৎসকের পরিবার

সামান্য বৃষ্টি হলেই ভোগান্তি আরও বেড়ে যায়। বিশেষ করে স্কুল-কলেজগামী শিক্ষার্থীরা যাতায়াতে চরম ঝুকির সম্মুখিন হতে হয়। বিভিন্ন স্থানে রাস্তাটি দেবে গিয়ে সৃষ্টি হয়েছে বড় বড় গর্তের। ফলে ভাঙ্গাচোরা রাস্তাটি দিয়ে চলতে গিয়ে অহরহ ঘটছে দুর্ঘটনা। এর পরেও যেন টনক লড়ছে না সংশ্লিষ্ট কতৃপক্ষের।

স্থানীয়দের দাবি রাস্তাটির এমন করুন পরিনতির বিষয়ে সংশ্লিষ্ট দপ্তরসহ উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তাকে একাধিকবার জানানো হয়েছে। স্থানীয় গ্রামবাসীসহ এলাকাবাসীর দাবি রাস্তাটি সংস্কারের জন্য দ্রুত ব্যবস্থা গ্রহণ ছাড়া তারা বিক্ষোভ কর্মসুচী অব্যাহত রাখবেন।

পড়ুনঃ-  চারঘাটের শলুয়া থেকে ১৩ বস্তা ঔষধ উদ্ধার

মোক্তারপুর বালিকা উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক রেজাউল করিম বলেন, বিদ্যালয়ে আসতে হলে ওই একমাত্র রাস্তাটি ছাড়া বিকল্প কোন রাস্তা নেই। দীর্ঘদিন ধরে রাস্তাটি দিয়ে বালুবাহি ভারী যানবাহন চলাচল করতে গিয়ে এই রাস্তাটি এমন করুন পরিনতি। তা ছাড়া রাস্তাটি দীর্ঘদিন ধরে সংস্কার করা হয়নি। ফলে একটু বৃষ্টি হলেই শিক্ষার্থীরা বিদ্যলয়ে আসতে পারে না। কাদা মাটি ভেদ করে তাদের বিদালয়ে আসতে হয়।

বিষয়টি সম্পর্কে উপজেলা প্রকৌশলী নুরুল ইসলাম বলেন, গত কয়েক মাস পুর্বে রাস্তাটি সংস্কার করা হয়েছিল। কিন্তু অধিক বালু ভর্তি ট্রাক চলাচলের কারনে রাস্তাটি ভেঙ্গে গেছে। তবে রাস্তাটি যাতে ভারী যানবাহন চলাচল করলেও কোন ক্ষতি না হয় সেজন্য উচ্চ পর্যায়ে বিষয়টি জানানো হয়েছে। দ্রুত সময়ের মধ্যে রাস্তাটি সংস্কারের উদ্যোগ গ্রহণ করা হবে বলে জানান তিনি।

পড়ুনঃ-  রাজশাহীর প্রবীণ সাংবাদিক ডা. বুলবুল আর নেই

উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা সৈয়দা সামিরা বলেন, উপজেলা সমন্বয় কমিটির সভায় রাস্তাটির বিষয়ে ব্যবস্থা নেয়ার জন্য আলোচনা হয়েছে।

উপজেলা চেয়ারম্যান আলহাজ্ব ফকরুল ইসলাম বলেন, ইতিমধ্যে রাস্তাটির বিষয়ে সমন্বয় সভায় আলোচনা করা হয়েছে। রাস্তাটি টেকসই করতে দ্রুত সময়ের মধ্যে ব্যবস্থা গ্রহন করা হবে।

চারঘাট পৌরসভামেয়র একরামুল হক ঘটনাস্থলে উপস্থিত হয়ে অবিলম্বে রাস্তা মেরামতের আশ্বাস দিলে অবরোধকারীরা অবরোধ তুলে নেয়।

দৈনিক চারঘাট ইউটিউব চ্যানেলে SUBSCRIBE করুন।